কৃষি, অর্থ ও বাণিজ্য

শুল্কমুক্ত বাণিজ্য শুরু করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ-ভুটান

শুল্কমুক্ত বাজার সুবিধা সম্প্রসারণে ভুটানের সঙ্গে মুক্ত বাণিজ্য চুক্তি বা ফ্রি ট্রেড এগ্রিমেন্ট (এফটিএ) করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এর মাধ্যমে এখন থেকে দুই দেশের বেশ কিছু পণ্য একে অপরের বাজারে শুল্ক ছাড়াই প্রবেশ করবে। পর্যায়ক্রমে পণ্যের সংখ্যা আরও বাড়বে। এছাড়া এই চুক্তির ফলে দুই দেশই শুল্কমুক্ত আমদানি-রফতানির নানা সুবিধা পাবে।

সম্প্রতি বান্দরবান জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে এক মতবিনিময় সভায় আগামীকাল রোববার (৬ ডিসেম্বর) বাংলাদেশ-ভুটানের মধ্যে এই মুক্তবাণিজ্য চুক্তি হতে যাচ্ছে বলে জানান বাণিজ্য সচিব ড. মো. জাফর উদ্দিন।

এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ১৯৭১ সালের ৬ ডিসেম্বর তৎকালীন ভুটান সরকার বাংলাদেশকে এই স্বীকৃতি দেয়। দেশ স্বাধীনের এই ৫০ বছর পূর্তিতে এই দিনটিকে স্মরণীয় করে রাখতেই পিটিএ স্বাক্ষরের জন্য ৬ ডিসেম্বরকে চূড়ান্ত করা হয়েছে। বাংলাদেশের সঙ্গে পিটিএ স্বাক্ষরকারী প্রথম দেশও ভুটান।

চুক্তিতে যেসব পণ্য থাকছে-

প্রাথমিক অবস্থায় বাংলাদেশের ১১০টি পণ্য ভুটানের বাজারে এবং ভুটানের ৩৪টি পণ্য বাংলাদেশের বাজারে শুল্কমুক্ত সুবিধা পাবে।

বাংলাদেশের পণ্যের মধ্যে রয়েছে: তৈরি পোশাক শিল্প, পাটজাত পণ্য, প্রক্রিয়াজাত খাদ্যসামগ্রী, যেমন- জুস, কনডেন্সড মিল্ক, বিস্কিট, পাউরুটি, কৃষিজাত পণ্য, যেমন- আলু, প্রসাধনী সামগ্রী, টয়লেট্রিজ পণ্য, যেমন- সাবান ও শ্যাম্পু, শুঁটকি মাছ, সিমেন্ট, চা, প্লাইউড, লাইট ইঞ্জিনিয়ারিং পণ্যসহ অন্যান্য পণ্য।

অপরদিকে ভুটান থেকে বোল্ডার, জিপসাম, ডোলোমাইট, ফল ও জুস, প্রক্রিয়াজাত খাদ্য, যেমন- জ্যাম ও জেলি, মসলা, ফার্নিচারসহ অন্যান্য পণ্য।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!
Close

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker